ঢাকা ০৫:৫৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইবিতে লেখক ফোরামের ২ দিনব্যাপী লেখা প্রদর্শনীর উদ্বোধন

ওয়াসিফ আল আবরার, ইবি

“সুপ্ত প্রতিভা বিকশিত হোক লেখনীর ধারায়” স্লোগানকে সামনে রেখে বাংলাদেশ তরুন কলাম লেখক ফোরাম, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) শাখার উদ্যোগে দুই দিনব্যাপী ‘লেখা প্রদর্শনী অনুষ্ঠান ২০২৪’ এর উদ্বোধন হয়েছে।

রবিবার (৪ ফেব্রুয়ারী) বেলা ১২ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলায় এ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম। লেখক ফোরাম, ইবি শাখার উদ্যোগে ৪ ও ৫ ফেব্রুয়ারী দুইদিন, টিএসসিসির করিডোরে এই লেখা প্রদর্শনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মামুনুর রহমান, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ডক্টর শাহাদৎ হোসেন আজাদ, সাবেক প্রক্টর অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন, ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও সংগঠনটির উপদেষ্টা শরিফুল ইসলাম জুয়েল এবং কমিউনিকেশন অ্যান্ড মাল্টিমিডিয়া জার্নালিজম বিভাগের প্রভাষক তন্ময় সাহা জয়, বাংলাদেশ তরুণ কলাম লেখক ফোরাম, কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক এস এ এইচ ওয়ালিউল্লাহসহ লেখক ফোরামের সদস্যবৃন্দ।

উক্ত অনুষ্ঠানে তরুণ লেখকদের বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় প্রকাশিত প্রায় শতাধিক লেখা প্রদর্শন করে। ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সমস্যা ও প্রত্যাশা বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যের নিকট পৌঁছে দিতে ‘মনের জানালা’ ও উন্মুক্ত কুইজ প্রতিযোগিতা ও সংগঠনটির দ্বিমাসিক প্রকাশনা ডাকঘরের জন্য উন্মুক্ত লেখা আহ্বান সহ নানা বুদ্ধিবৃত্তিক ও সৃষ্টিশীল কর্মসূচির আয়োজন করেছে সংগঠনটি।

এছাড়াও সংগঠনটি ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলাকে বিভিন্ন ধরণের কারুকার্যের মাধ্যমে সাজিয়ে তুলেছেন। সংগঠনটির এই লেখা প্রদর্শনীকে কেন্দ্র করে বটতলায় উৎসবমুখর পরিবেশে বিরাজ করছে। স্বতঃস্ফূর্তভাবে বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীরা এই প্রদর্শনীতে অংশ নিচ্ছে।

লেখা প্রদর্শনীর সম্পর্কে সংগঠনটির সভাপতি আবু তালহা আকাশ বলেন, ‘ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসে প্রথম বারের মতো লেখা প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে বাংলাদেশ তরুণ কলাম লেখক ফোরাম, ইবি শাখা। আমরা সবসময় বুদ্ধি ভিত্তিক চর্চার মাধ্যমে সুন্দর সমাজ প্রতিষ্ঠার জন্য কাজ করি। শিক্ষার্থীদের বুদ্ধি ভিত্তিক চর্চার সুযোগ ও জাতি কে বইমুখী করার জন্য চেষ্টা করে আসছি। আমরা আশা করছি এই ধরণের আয়োজনের মাধ্যমে সারা বাংলাদেশের তরুণ সমাজ বুদ্ধি ভিত্তিক চর্চায় আগ্রহী হয়ে উঠবে।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ তরুণ কলাম লেখক ফোরাম, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা লেখালেখি ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক ও সেচ্ছাসেবামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে। ২০১৯ সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকে ২১ টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে পরপর ৪র্থবারের ‘বর্ষসেরা’ শাখা নির্বাচিত হয় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপডেট সময় ০১:৩৪:৩৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
১৩৪ বার পড়া হয়েছে

ইবিতে লেখক ফোরামের ২ দিনব্যাপী লেখা প্রদর্শনীর উদ্বোধন

আপডেট সময় ০১:৩৪:৩৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

“সুপ্ত প্রতিভা বিকশিত হোক লেখনীর ধারায়” স্লোগানকে সামনে রেখে বাংলাদেশ তরুন কলাম লেখক ফোরাম, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) শাখার উদ্যোগে দুই দিনব্যাপী ‘লেখা প্রদর্শনী অনুষ্ঠান ২০২৪’ এর উদ্বোধন হয়েছে।

রবিবার (৪ ফেব্রুয়ারী) বেলা ১২ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলায় এ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম। লেখক ফোরাম, ইবি শাখার উদ্যোগে ৪ ও ৫ ফেব্রুয়ারী দুইদিন, টিএসসিসির করিডোরে এই লেখা প্রদর্শনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মামুনুর রহমান, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ডক্টর শাহাদৎ হোসেন আজাদ, সাবেক প্রক্টর অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন, ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও সংগঠনটির উপদেষ্টা শরিফুল ইসলাম জুয়েল এবং কমিউনিকেশন অ্যান্ড মাল্টিমিডিয়া জার্নালিজম বিভাগের প্রভাষক তন্ময় সাহা জয়, বাংলাদেশ তরুণ কলাম লেখক ফোরাম, কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক এস এ এইচ ওয়ালিউল্লাহসহ লেখক ফোরামের সদস্যবৃন্দ।

উক্ত অনুষ্ঠানে তরুণ লেখকদের বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় প্রকাশিত প্রায় শতাধিক লেখা প্রদর্শন করে। ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সমস্যা ও প্রত্যাশা বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যের নিকট পৌঁছে দিতে ‘মনের জানালা’ ও উন্মুক্ত কুইজ প্রতিযোগিতা ও সংগঠনটির দ্বিমাসিক প্রকাশনা ডাকঘরের জন্য উন্মুক্ত লেখা আহ্বান সহ নানা বুদ্ধিবৃত্তিক ও সৃষ্টিশীল কর্মসূচির আয়োজন করেছে সংগঠনটি।

এছাড়াও সংগঠনটি ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলাকে বিভিন্ন ধরণের কারুকার্যের মাধ্যমে সাজিয়ে তুলেছেন। সংগঠনটির এই লেখা প্রদর্শনীকে কেন্দ্র করে বটতলায় উৎসবমুখর পরিবেশে বিরাজ করছে। স্বতঃস্ফূর্তভাবে বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীরা এই প্রদর্শনীতে অংশ নিচ্ছে।

লেখা প্রদর্শনীর সম্পর্কে সংগঠনটির সভাপতি আবু তালহা আকাশ বলেন, ‘ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসে প্রথম বারের মতো লেখা প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে বাংলাদেশ তরুণ কলাম লেখক ফোরাম, ইবি শাখা। আমরা সবসময় বুদ্ধি ভিত্তিক চর্চার মাধ্যমে সুন্দর সমাজ প্রতিষ্ঠার জন্য কাজ করি। শিক্ষার্থীদের বুদ্ধি ভিত্তিক চর্চার সুযোগ ও জাতি কে বইমুখী করার জন্য চেষ্টা করে আসছি। আমরা আশা করছি এই ধরণের আয়োজনের মাধ্যমে সারা বাংলাদেশের তরুণ সমাজ বুদ্ধি ভিত্তিক চর্চায় আগ্রহী হয়ে উঠবে।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ তরুণ কলাম লেখক ফোরাম, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা লেখালেখি ছাড়াও বিভিন্ন সামাজিক ও সেচ্ছাসেবামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে। ২০১৯ সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকে ২১ টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে পরপর ৪র্থবারের ‘বর্ষসেরা’ শাখা নির্বাচিত হয় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা।