ঢাকা ০৯:৪১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে ১০ ও ১১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে ’কুয়াশা উৎসব’

মোঃ সাহাদাৎ হোসেন, নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে দুই দিন ব্যাপী কুয়াশা উৎসব অনুষ্ঠিত।’হারাবার আগে পায়ে মাখো শিশির, কুয়াশার মাঠে বাড়ুক প্রানের ভিড়’ এই প্রতিপাদ্য নিয়ে তৃতীয় বারের মতো উদযাপিত কুয়াশা উৎসব।

সোমবার (০৪ ডিসেম্বর) কুয়াশা উৎসবের আয়োজন করে কমিটি কুয়াশা উৎসবের তারিখ নির্ধারণ করেছে। আগামী ১০ ও ১১ ডিসেম্বর কুয়াশা উৎসব উদযাপিত হবে বলে জানা যায়। শীতের কুয়াশামাখা আগমনেকে বরন করে নেওয়ার জন্য নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতি বছর পালিত হয় কুয়াশা উৎসব।

শীতের আগমন যে শুধু রুক্ষতাই নিয়ে আসেনা , নিয়ে আসে একগুচ্ছ আশির্বাদ সেই বিষয়টিকে ধারন করেই এই বছর উৎসব আয়োজনের জন্য ব্যাপক প্রস্তুতি নিচ্ছে কুয়াশা উৎসবের আয়োজক কমিটি। সব বিভাগের সাধারণ শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও কর্মচারীদের নিয়ে গঠন করা হয়েছে কুয়াশা উৎসব আয়োজক পর্ষদ।

মার্কেটিং বিভাগের ১৬ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী  সানিয়া আক্তার তার অনুভূতি প্রকাশ করে বলেন, “কুয়াশা উৎসব নজরুল তীর্থের ঐতিহ্য । কুয়াশা উৎসবকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অভয়ারণ্য হয়ে উঠে নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস।” লোকপ্রশাসন ও সরকার পরিচালনা বিদ্যা বিভাগের ১৪ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী আনসাফ আল আরাফ বলেন,”শীতের হিম কুয়াশা কে বরণ করে নেওয়া হয় এই কুয়াশা উৎসব এর মাধ্যমে , এটি যেন বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি প্রাণের স্পন্দন। প্রতি বছর আমরা যারা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রয়েছি অপেক্ষায় থাকি এই কুয়াশা উৎসবের। সবাই একত্রিত হই, যেন এক প্রানের মেলা।

এ বছরও কুয়াশা উৎসব পালন করা হবে এবং এবারেও আমরা অনেক আশাবাদী এ উৎসব নিয়ে। সবাইকে স্বাগতম নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের কুয়াশা উৎসবে।” মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী জুবায়ের রাব্বি বলেন,”কুয়াশা উৎসব মানেই বাঙালিয়ানা সাংস্কৃতিক আয়োজনের নতুনত্ব ধারা এবং কুয়াশা উৎসবকে কেন্দ্র করে আয়োজনের আরেকধাপ এগিয়ে আমাদের নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়। কুয়াশা উৎসব নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অনন্য সাংস্কৃতিক উৎসব। শীতকে বরন করে নেওয়ার এই উৎসব বাংলাদেশে বিরল।”

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপডেট সময় ১১:০৫:০১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৪ ডিসেম্বর ২০২৩
২৬০ বার পড়া হয়েছে

কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে ১০ ও ১১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে ’কুয়াশা উৎসব’

আপডেট সময় ১১:০৫:০১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৪ ডিসেম্বর ২০২৩

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে দুই দিন ব্যাপী কুয়াশা উৎসব অনুষ্ঠিত।’হারাবার আগে পায়ে মাখো শিশির, কুয়াশার মাঠে বাড়ুক প্রানের ভিড়’ এই প্রতিপাদ্য নিয়ে তৃতীয় বারের মতো উদযাপিত কুয়াশা উৎসব।

সোমবার (০৪ ডিসেম্বর) কুয়াশা উৎসবের আয়োজন করে কমিটি কুয়াশা উৎসবের তারিখ নির্ধারণ করেছে। আগামী ১০ ও ১১ ডিসেম্বর কুয়াশা উৎসব উদযাপিত হবে বলে জানা যায়। শীতের কুয়াশামাখা আগমনেকে বরন করে নেওয়ার জন্য নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতি বছর পালিত হয় কুয়াশা উৎসব।

শীতের আগমন যে শুধু রুক্ষতাই নিয়ে আসেনা , নিয়ে আসে একগুচ্ছ আশির্বাদ সেই বিষয়টিকে ধারন করেই এই বছর উৎসব আয়োজনের জন্য ব্যাপক প্রস্তুতি নিচ্ছে কুয়াশা উৎসবের আয়োজক কমিটি। সব বিভাগের সাধারণ শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও কর্মচারীদের নিয়ে গঠন করা হয়েছে কুয়াশা উৎসব আয়োজক পর্ষদ।

মার্কেটিং বিভাগের ১৬ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী  সানিয়া আক্তার তার অনুভূতি প্রকাশ করে বলেন, “কুয়াশা উৎসব নজরুল তীর্থের ঐতিহ্য । কুয়াশা উৎসবকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অভয়ারণ্য হয়ে উঠে নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস।” লোকপ্রশাসন ও সরকার পরিচালনা বিদ্যা বিভাগের ১৪ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী আনসাফ আল আরাফ বলেন,”শীতের হিম কুয়াশা কে বরণ করে নেওয়া হয় এই কুয়াশা উৎসব এর মাধ্যমে , এটি যেন বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি প্রাণের স্পন্দন। প্রতি বছর আমরা যারা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রয়েছি অপেক্ষায় থাকি এই কুয়াশা উৎসবের। সবাই একত্রিত হই, যেন এক প্রানের মেলা।

এ বছরও কুয়াশা উৎসব পালন করা হবে এবং এবারেও আমরা অনেক আশাবাদী এ উৎসব নিয়ে। সবাইকে স্বাগতম নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের কুয়াশা উৎসবে।” মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী জুবায়ের রাব্বি বলেন,”কুয়াশা উৎসব মানেই বাঙালিয়ানা সাংস্কৃতিক আয়োজনের নতুনত্ব ধারা এবং কুয়াশা উৎসবকে কেন্দ্র করে আয়োজনের আরেকধাপ এগিয়ে আমাদের নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়। কুয়াশা উৎসব নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অনন্য সাংস্কৃতিক উৎসব। শীতকে বরন করে নেওয়ার এই উৎসব বাংলাদেশে বিরল।”