ঢাকা ১২:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ধর্ষণ মামলায় হারলেন ট্রাম্প, ৮ কোটি ৩৩ লাখ ডলার জরিমানা

নিজস্ব সংবাদ

ধর্ষণের একটি মামলায় হেরে গেছেন যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। শাস্তি হিসেবে তাকে ৮ কোটি ৩৩ লাখ ডলার জরিমানা করেছেন নিউইয়র্কের একটি আদালত। জরিমানার এই অর্থ মামলার বাদী মার্কিন লেখক ও সাংবাদিক ই. জেন ক্যারলকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে দিতে হবে বলে নির্দেশ দেন আদালত। খবর: বিবিসির

স্থানীয় সময় শুক্রবার (২৬ জানুয়ারি) নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্যের ম্যানহাটান ফেডারেল আদালত এই মামলার রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার সময় আদালত ভবনে থাকলেও এজলাসে হাজির ছিলেন না ট্রাম্প। অন্যদিকে নিজের দুই আইনজীবীর সঙ্গে এজলাসে হাজির ছিলেন ক্যারল।

রায় ঘোষণার পর নিজের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ট্রুথ সোশ্যালে ক্ষোভ ঝাড়েন ট্রাম্প। বিচার ব্যবস্থাকে প্রশ্নবিদ্ধ করেন তিনি।  এক পোস্টে ৭৭ বছর বয়সী ট্রাম্প লেখেন, ‘আমাদের বিচার ব্যবস্থা নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে এবং এখন একে রাজনৈতিক অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। এটা আমেরিকার সংস্কৃতি নয়। ’

অন্য দিকে রায় ঘোষণার পর উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন মামলার বাদী ক্যারল। নিজের প্রতিক্রিয়া জানাতে ৭৮ বছরের মার্কিন লেখক বলেন, ‘এই রায় সেসব নারীর জন্য মহান বিজয় যারা আঘাত পেয়ে পড়ে যাওয়ার পর ফের উঠে দাঁড়ায়। আর যেসব উৎপীড়কের জন্য পরাজয় যারা প্রতিনিয়ত নারীকে দমিয়ে রাখতে চায়। ’

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপডেট সময় ০১:২৪:৪৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৪
৬৫ বার পড়া হয়েছে

ধর্ষণ মামলায় হারলেন ট্রাম্প, ৮ কোটি ৩৩ লাখ ডলার জরিমানা

আপডেট সময় ০১:২৪:৪৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৪

ধর্ষণের একটি মামলায় হেরে গেছেন যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। শাস্তি হিসেবে তাকে ৮ কোটি ৩৩ লাখ ডলার জরিমানা করেছেন নিউইয়র্কের একটি আদালত। জরিমানার এই অর্থ মামলার বাদী মার্কিন লেখক ও সাংবাদিক ই. জেন ক্যারলকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে দিতে হবে বলে নির্দেশ দেন আদালত। খবর: বিবিসির

স্থানীয় সময় শুক্রবার (২৬ জানুয়ারি) নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্যের ম্যানহাটান ফেডারেল আদালত এই মামলার রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার সময় আদালত ভবনে থাকলেও এজলাসে হাজির ছিলেন না ট্রাম্প। অন্যদিকে নিজের দুই আইনজীবীর সঙ্গে এজলাসে হাজির ছিলেন ক্যারল।

রায় ঘোষণার পর নিজের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ট্রুথ সোশ্যালে ক্ষোভ ঝাড়েন ট্রাম্প। বিচার ব্যবস্থাকে প্রশ্নবিদ্ধ করেন তিনি।  এক পোস্টে ৭৭ বছর বয়সী ট্রাম্প লেখেন, ‘আমাদের বিচার ব্যবস্থা নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে এবং এখন একে রাজনৈতিক অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে। এটা আমেরিকার সংস্কৃতি নয়। ’

অন্য দিকে রায় ঘোষণার পর উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন মামলার বাদী ক্যারল। নিজের প্রতিক্রিয়া জানাতে ৭৮ বছরের মার্কিন লেখক বলেন, ‘এই রায় সেসব নারীর জন্য মহান বিজয় যারা আঘাত পেয়ে পড়ে যাওয়ার পর ফের উঠে দাঁড়ায়। আর যেসব উৎপীড়কের জন্য পরাজয় যারা প্রতিনিয়ত নারীকে দমিয়ে রাখতে চায়। ’