ঢাকা ০৪:১৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে বিজনেস ক্লাবের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন অনুষ্ঠান সম্পন্ন

মোঃ সাহাদাৎ হোসেন, নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজনেস ক্লাবের ২০২৪ সালের কার্যক্রম মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) শুরু হয়েছে। প্রশাসনিক ভবনের কনফারেন্স কক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর।

অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে উপাচার্য প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর বলেন, আমরা নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে যারা যুক্ত তারা সবাই মিলে একটা কমিউনিটি, একটা পরিবার। আজকে যে শিক্ষার্থী এই বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছে তার সঙ্গে সারা জীবনের জন্য এই বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম যুক্ত হয়ে গেছে। সেই বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাবমূর্তি/ ইমেজ যদি ভালো না থাকে তাহলে সবাইকেই ছোট হতে হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভালো দিকগুলোকে প্রচার করতে হবে। তাই বিশ্ববিদ্যালয়ের ইমেজ বৃদ্ধিতে একযোগে কাজ করতে হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাবমূর্তিকে সবসময় সামনে রাখতে হবে। মনুষ্যত্ববোধ ও ন্যায়নীতি বজায় রেখে আগামীর শিক্ষার্থীদের ব্যবসা করে যেতে হবে বলেও উপাচার্য মন্তব্য করেন।

এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ই-ক্যাবের অর্থ সম্পাদক আসিফ আহনাফ, ছাত্র উপদেষ্টা ড. মোহাম্মদ মেহেদী উল্লাহসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক ও কর্মকর্তারা।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপডেট সময় ০৯:৫৩:০৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
৪৩ বার পড়া হয়েছে

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে বিজনেস ক্লাবের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন অনুষ্ঠান সম্পন্ন

আপডেট সময় ০৯:৫৩:০৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজনেস ক্লাবের ২০২৪ সালের কার্যক্রম মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) শুরু হয়েছে। প্রশাসনিক ভবনের কনফারেন্স কক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর।

অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে উপাচার্য প্রফেসর ড. সৌমিত্র শেখর বলেন, আমরা নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে যারা যুক্ত তারা সবাই মিলে একটা কমিউনিটি, একটা পরিবার। আজকে যে শিক্ষার্থী এই বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছে তার সঙ্গে সারা জীবনের জন্য এই বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম যুক্ত হয়ে গেছে। সেই বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাবমূর্তি/ ইমেজ যদি ভালো না থাকে তাহলে সবাইকেই ছোট হতে হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভালো দিকগুলোকে প্রচার করতে হবে। তাই বিশ্ববিদ্যালয়ের ইমেজ বৃদ্ধিতে একযোগে কাজ করতে হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাবমূর্তিকে সবসময় সামনে রাখতে হবে। মনুষ্যত্ববোধ ও ন্যায়নীতি বজায় রেখে আগামীর শিক্ষার্থীদের ব্যবসা করে যেতে হবে বলেও উপাচার্য মন্তব্য করেন।

এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ই-ক্যাবের অর্থ সম্পাদক আসিফ আহনাফ, ছাত্র উপদেষ্টা ড. মোহাম্মদ মেহেদী উল্লাহসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক ও কর্মকর্তারা।