ঢাকা ১১:৫১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সাঘাটায় সিএনজি দূর্ঘটনায় মা ও ছেলে নিহত! ৩ আহত

সুলতান আহমেদ, সাঘাটা ( গাইবান্ধা )

সাঘাটা – গাইবান্ধা সড়কে শনিবার রাতে বগুড়া থেকে ঈদের জন্য কাপড় ক্রয় করে সিএনজি যোগে বাড়ী ফেরার সময় বিলবস্ত নামক স্থানে রাস্তার পিস, পাথর মিশানো মিক্সার মেশিন এর সাথে ধাক্কা খেয়ে ভরতখালী ইউনিয়নের উত্তর উল্যা গ্রামের প্রবাসী রবিউলের স্ত্রী শান্ত বেগম (৩৫) ছেলে রবি(১৪) ও একই গ্রামের আশরাফুলের স্ত্রী রুমপা বেগম( ৩৪) আশরাফুলের মেয়ে রুপা খাতুন (১৪) ও দুদু মিয়া (৫৫) নামের ৫ যাত্রী গুরুতর আহত হয়।

স্থানীয়রা আহত ব্যক্তিদেরকে উদ্ধার করে সাঘাটা হাসপাতালে ভর্তি করলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আহত ব্যক্তিদের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায়। উন্নত চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে স্থানান্তর করেন। রাস্তার মাঝেই প্রবাসীর স্ত্রী শান্ত বেগম ও ছেলে রবির মৃত্যু হয় । অপর ৩ জন্য হাসপাতালে চিকিৎসাধীন হয়েছে বলে জানা গেছে। নিহত ব্যক্তির পরিবার সুএে জানা গেছে মা ও ছেলের লাশ বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আছে। প্রবাসী রবিউল ইসলাম দেশে আসার পর তাদেরকে আনা হবে এবং পারিবারিক কবরস্থানে দাফন সম্পন্ন করা হবে।

নিহতের বিষয়ে সাঘাটা থানার অফিসার ইনচার্জ মমতাজুল হকের সাথে কথা হলে তিনি জানান দুর্ঘটনার সিএনজি জব্দ করা হয়েছে, তবে সিএনজি চালককে এখন পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। এবং নিহতের বিষয়ে কেউ অভিযোগ করেন নাই। অভিযোগ করলে তাদের বিরুদ্ধে সড়ক দুর্ঘটনা আইনে মামলা দায়ের করা হবে ।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপডেট সময় ০৯:১৭:৪৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ মার্চ ২০২৪
২০১ বার পড়া হয়েছে

সাঘাটায় সিএনজি দূর্ঘটনায় মা ও ছেলে নিহত! ৩ আহত

আপডেট সময় ০৯:১৭:৪৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ মার্চ ২০২৪

সাঘাটা – গাইবান্ধা সড়কে শনিবার রাতে বগুড়া থেকে ঈদের জন্য কাপড় ক্রয় করে সিএনজি যোগে বাড়ী ফেরার সময় বিলবস্ত নামক স্থানে রাস্তার পিস, পাথর মিশানো মিক্সার মেশিন এর সাথে ধাক্কা খেয়ে ভরতখালী ইউনিয়নের উত্তর উল্যা গ্রামের প্রবাসী রবিউলের স্ত্রী শান্ত বেগম (৩৫) ছেলে রবি(১৪) ও একই গ্রামের আশরাফুলের স্ত্রী রুমপা বেগম( ৩৪) আশরাফুলের মেয়ে রুপা খাতুন (১৪) ও দুদু মিয়া (৫৫) নামের ৫ যাত্রী গুরুতর আহত হয়।

স্থানীয়রা আহত ব্যক্তিদেরকে উদ্ধার করে সাঘাটা হাসপাতালে ভর্তি করলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আহত ব্যক্তিদের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায়। উন্নত চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে স্থানান্তর করেন। রাস্তার মাঝেই প্রবাসীর স্ত্রী শান্ত বেগম ও ছেলে রবির মৃত্যু হয় । অপর ৩ জন্য হাসপাতালে চিকিৎসাধীন হয়েছে বলে জানা গেছে। নিহত ব্যক্তির পরিবার সুএে জানা গেছে মা ও ছেলের লাশ বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আছে। প্রবাসী রবিউল ইসলাম দেশে আসার পর তাদেরকে আনা হবে এবং পারিবারিক কবরস্থানে দাফন সম্পন্ন করা হবে।

নিহতের বিষয়ে সাঘাটা থানার অফিসার ইনচার্জ মমতাজুল হকের সাথে কথা হলে তিনি জানান দুর্ঘটনার সিএনজি জব্দ করা হয়েছে, তবে সিএনজি চালককে এখন পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। এবং নিহতের বিষয়ে কেউ অভিযোগ করেন নাই। অভিযোগ করলে তাদের বিরুদ্ধে সড়ক দুর্ঘটনা আইনে মামলা দায়ের করা হবে ।