ঢাকা ০৬:৩৭ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সেমি-ফাইনালের সমীকরণ দরকার ৩৮.১ ওভারের মধ্যে ১৫৬ রান

নিজস্ব সংবাদ

বোলারদের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে যুব বিশ্বকাপের ম্যাচে পাকিস্তানকে ১৫৫ রানে আটকে ফেলে বাংলাদেশ যুব ক্রিকেট টিম।

রান রেট বাড়ানোর চ্যালেঞ্জ নিয়ে পাকিস্তানকে হারানোর লড়াইয়ে বাংলাদেশকে এগিয়ে রাখলেন যুব বোলাররা। সহায়ক উইকেটে আগুন বোলিংয়ে চার উইকেট শিকার করলেন রোহানাত দৌলাহ বর্ষণ। দুর্দান্ত বোলিংয়ে পরে চার উইকেট শিকার করলেন অফ স্পিনার শেখ পারভেজ জীবন। পাকিস্তান গুটিয়ে গেল মাত্র ১৫৫ রানেই।

যুব বিশ্বকাপের সুপার সিক্স পর্বের ম্যাচটিতে ৩৮.১ ওভারে এই রান টপকে গেলেই রান রেটে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলবে বাংলাদেশ। এবারের আসরের শেষ দল হিসেবে তারা নিশ্চিত করে ফেলবে সেমি-ফাইনালও।

দক্ষিণ আফ্রিকার বেনোনিতে মঙ্গলবার টস জিতে পাকিস্তানকে ব্যাটিংয়ে পাঠান বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহফুজুর রহমান রাব্বি। উইকেটে ছিল তাজা ঘাসের ছোঁয়া। তবে নতুন বলের দুই পেসার ইকবাল হোসেন ইমন ও মারুফ মৃধা আঁটসাঁট শুরু করলেও উইকেট এনে দিতে পারেননি।

তবে রোহানাত আক্রমণে আসার পর বদলে যায় ম্যাচের চিত্র। গতি ও বাড়তি বাউন্সে পাকিস্তানের ব্যাটসম্যানদের নাভিশ্বাস তুলে ছাড়েন তিনি। নবম ওভারে বল হাতে নিয়ে প্রথম ওভারেই তিনি দলকে এনে দেন উইকেট। দুর্দান্ত প্রথম স্পেলে তিনি উইকেট এনে দেন আরেকটি।

পাকিস্তানি অধিনায়ক সাদ বেগকে দারুণ এক সরাসরি থ্রোয়ে রান আউট করেন আরিফুল। এরপর পাকিস্তানকে আরও চেপে ধরেন জীবন ও রাব্বি। উল্লেখযোগ্য কোনো জুটি তারা গড়তে পারেনি। সর্বোচ্চ ৩৪ রান আসে সাতে নামা আরাফাত মিনহাসের ব্যাট থেকে।

পাকিস্তান গুটিয়ে যায় ৫৬ বল বাকি রেখেই।

১০ ওভারে মাত্র ২৪ রান দিয়ে ৪ উইকেট নেন জীবন, ৮ ওভারে ২৪ রানে ৪টি রোহানাত। অধিনায়ক রাব্বির শিকার ১টি।সেমি-ফাইনালের সমীকরণ দরকার ৩৮.১ ওভারের মধ্যে ১৫৬ রানসেমি-ফাইনালের সমীকরণ দরকার ৩৮.১ ওভারের

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

আপডেট সময় ০৬:৩৮:৫০ অপরাহ্ন, শনিবার, ৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
২০৩ বার পড়া হয়েছে

সেমি-ফাইনালের সমীকরণ দরকার ৩৮.১ ওভারের মধ্যে ১৫৬ রান

আপডেট সময় ০৬:৩৮:৫০ অপরাহ্ন, শনিবার, ৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

বোলারদের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে যুব বিশ্বকাপের ম্যাচে পাকিস্তানকে ১৫৫ রানে আটকে ফেলে বাংলাদেশ যুব ক্রিকেট টিম।

রান রেট বাড়ানোর চ্যালেঞ্জ নিয়ে পাকিস্তানকে হারানোর লড়াইয়ে বাংলাদেশকে এগিয়ে রাখলেন যুব বোলাররা। সহায়ক উইকেটে আগুন বোলিংয়ে চার উইকেট শিকার করলেন রোহানাত দৌলাহ বর্ষণ। দুর্দান্ত বোলিংয়ে পরে চার উইকেট শিকার করলেন অফ স্পিনার শেখ পারভেজ জীবন। পাকিস্তান গুটিয়ে গেল মাত্র ১৫৫ রানেই।

যুব বিশ্বকাপের সুপার সিক্স পর্বের ম্যাচটিতে ৩৮.১ ওভারে এই রান টপকে গেলেই রান রেটে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলবে বাংলাদেশ। এবারের আসরের শেষ দল হিসেবে তারা নিশ্চিত করে ফেলবে সেমি-ফাইনালও।

দক্ষিণ আফ্রিকার বেনোনিতে মঙ্গলবার টস জিতে পাকিস্তানকে ব্যাটিংয়ে পাঠান বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহফুজুর রহমান রাব্বি। উইকেটে ছিল তাজা ঘাসের ছোঁয়া। তবে নতুন বলের দুই পেসার ইকবাল হোসেন ইমন ও মারুফ মৃধা আঁটসাঁট শুরু করলেও উইকেট এনে দিতে পারেননি।

তবে রোহানাত আক্রমণে আসার পর বদলে যায় ম্যাচের চিত্র। গতি ও বাড়তি বাউন্সে পাকিস্তানের ব্যাটসম্যানদের নাভিশ্বাস তুলে ছাড়েন তিনি। নবম ওভারে বল হাতে নিয়ে প্রথম ওভারেই তিনি দলকে এনে দেন উইকেট। দুর্দান্ত প্রথম স্পেলে তিনি উইকেট এনে দেন আরেকটি।

পাকিস্তানি অধিনায়ক সাদ বেগকে দারুণ এক সরাসরি থ্রোয়ে রান আউট করেন আরিফুল। এরপর পাকিস্তানকে আরও চেপে ধরেন জীবন ও রাব্বি। উল্লেখযোগ্য কোনো জুটি তারা গড়তে পারেনি। সর্বোচ্চ ৩৪ রান আসে সাতে নামা আরাফাত মিনহাসের ব্যাট থেকে।

পাকিস্তান গুটিয়ে যায় ৫৬ বল বাকি রেখেই।

১০ ওভারে মাত্র ২৪ রান দিয়ে ৪ উইকেট নেন জীবন, ৮ ওভারে ২৪ রানে ৪টি রোহানাত। অধিনায়ক রাব্বির শিকার ১টি।সেমি-ফাইনালের সমীকরণ দরকার ৩৮.১ ওভারের মধ্যে ১৫৬ রানসেমি-ফাইনালের সমীকরণ দরকার ৩৮.১ ওভারের